ঈদ সংখ্যায় প্রকাশের অপেক্ষায় কবি আশরাফুল আলম রাতুল এবং কবি প্রিয়াংকা সাহার কবিতা।

নাটোর জেলার সর্বাধিক প্রচারিত সাহিত্য ম্যাগাজিন ইয়ে পত্রিকা নামে নয়- লেখায় পরিচয় এর শুভযাত্রা শুরু হয় ২০১২ সালের জানুয়ারী মাসের ৭ তারিখে। পথচলার প্রথম বছরেই নাটোরের অগনিত পাঠক হৃদয়ে জায়গা করে নিতে সক্ষম হয় ম্যাগাজিনটি। ত্রৈমাসিক সাহিত্য ম্যাগাজিন হিসেবে নাটোরে পা রাখলেও মাত্র ছয় মাস পরেই সম্পূর্ণ দ্বিমাসিক ম্যাগাজিনে রূপায়িত হয় নাটোরের এই সুপার ফানি রম্য ম্যাগাজিনটি । অসহায় ও দরিদ্র ছাত্র ছাত্রীদের পাশে দাঁড়ানো সহ বিভিন্ন জনহিতকর কাজে অংশ নিয়ে এবং মজার মজার কিছু লেখা পাঠকসমাজকে উপহার দিয়ে বতর্মানে নাটোর জেলার তুঙ্গস্পর্শী জনপ্রিয়তায় অধিষ্ঠিত হয় ইয়ে পত্রিকা। ২০১২ থেকে গত প্রায় ৮ বছরে অনেক পাঠকাপ্রিয় সংখ্যা প্রকাশ করেছে ইয়ে পত্রিকা। তবে এবারের ঈদ সংখ্যা অন্য সব সংখ্যার চেয়ে সম্পূর্ণ আলাদা হবে বলে জানান ইয়ে পত্রিকা নামে নয়- লেখায় পরিচয় এর প্রতিষ্ঠাতা সম্পাদক তৌফিকুল ইসলাম। সেই সাখে এবারের ইয়ে পত্রিকা ৪০ পৃষ্ঠায় প্রকাশিত হবে বলেও ঘোষণা দেন তিনি। এ সংখ্যায় মূলত প্রকাশের অপেক্ষায় আছে বাংলাদেশ ও ভারতের এক ঝাঁক তরুণ লেখক লেখিকাদের সাহিত্যকর্ম। তার মধ্যে এস.এস.সি ২০১১ ব্যাচের তরুণ কবি আশরাফুল আলম রাতুল এবং কবি প্রিয়াংকা সাহার কবিতাও আছে প্রকাশের অপেক্ষায়। সর্বোপরি ইয়ে পত্রিকার গত ৮ বছরের পথচলায় সবচেয়ে বেশি ব্যবসাসফল সংখ্যা হবে এবারের ঈদ সংখ্যা। এমন ধারণা রাখছে সম্পাদনা পরিষদ।